Posted in কিভাবে কিভাবে যেন লিখে ফেললাম, ভালো লাগা, ভালোবাসা

সাত সুমুদ্দুর তের নদীর দেশ


রাতের আঁধার, ছেঁড়া মেঘ, খসে পড়া তারা
একটা কোলবালিশে মাথা রেখে উপুড় হয়ে শোয়া
আধখানা কাব্য আর নিশাচর পাখিদের ডাক
শোনা যাক তবে শোনা যাক।

কত কোলাহল, পৃথিবীর মানবকূল
কত শব্দ, নিঃশব্দ আর সময়ের পথচলা,
অসীম শূন্যতা, ঘন কালো আঁধারে
একা জেগে থাকা আর ইনবক্সে মেইলের অপেক্ষা…

কোন এক অজানার পথচলা
কবে হবে শেষ?
কবে যাবো, পাড়ি দোব
সাত সুমুদ্দুর তেরো নদীর দেশ।

Advertisements
Posted in কিভাবে কিভাবে যেন লিখে ফেললাম, ভালো লাগা, ভালোবাসা

ছ্যাঁকা খেয়ে ব্যাঁকা


‘বিপু’ আজ একা
ছ্যাঁকা খেয়ে ব্যাঁকা,
মাথা শুন্য, ফাঁকা
প্রশ্ন একটাই, কেন? কেন? কেন? এই ধোঁকা!

প্রেমের দড়ির কেরামতি
পাশ কাটিয়ে অগ্রগ্রতি
খুঁটিয়ে মন কোমলমতি
হাতে হারিকেন, মাথায় ছাতি

কত দুপুর-বিকেল-রাত্রি
জ্বালিয়ের প্রেমের হ্যাজাক বাতি
তুমি আমি আর ক্ষুদে বার্তা
মনের দামামায় ষোড়শ মাত্রা

সব ফুরোল, মজা লুটিলো
কেনই সে ছ্যাঁকা দিলো?
‘বিপু’ই কেন !!!
অঝোরে কাঁদিলো?

ব্যাঁকা তো সে আগেই
লম্বা শরীর বয়সের ভারে, চলতো ডান কাতেই
তবু এই নতুন ছ্যাঁকা
দাগ কেটে মনে, টেনেছে স্যাঁকা

বিপু’র ছ্যাঁকায় মালিশের ঘড়া
ক্ষুদ্র এই অনুকাব্য/ছড়া।

আমার খুবই পছন্দের একটা ছেলে ‘বিপু’। মুন্নাভাই স্টাইলে গনস্বাস্থ্য বিশ্ববিদ্যালয়ের এক অপূর্বকন্ঠী(হবু চিকিৎসক)র সংগে মুঠোফোনিক সম্পর্কচ্ছেদের যন্ত্রনায় পুড়ে গত ৯ই মে টানা ৮৬৪০০ সেকেন্ড মুঠোফোন বর্জন দিবস পালন করে। তাঁর এই যন্ত্রনায় বার্নল মলম না পারলেও টাটকা তুলসি পাতার রস লাগাবার চেষ্টা করলাম। 🙂

Posted in খেয়াল করুন, জেনে রাখুন, দেশ ও জাতির প্রতি দ্বায়বদ্ধতা, প্রযুক্তি নিয়ে আউলা চিন্তা, ভালো লাগা, ভালোবাসা

মাভাবিপ্রবি-এফওএসএস বাংলাদেশ আয়োজিত লিনাক্স ব্যবহারের কলাকৌশল বিষয়ক কর্মশালা – মে’২০১১


দূর্নীতির গ্লানিমুক্ত, উন্মুক্ত সোর্স ও মুক্ত প্রযুক্তি নির্ভর, সুখী-সমৃদ্ধ, স্বনির্ভর ও সম্মানজনক বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয়ে বিগত ৫ ও ৬ ই মে ২০১১ইং রোজ বৃহ্স্পতিবার ও শুক্রবার, মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের আয়োজনে, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের ‘সাইবার সেন্টার’ এ ‘উন্মুক্ত সোর্স ভিত্তিক মুক্ত সফটওয়্যার ‘লিনাক্স’ এর ব্যবহার, সমস্যা ও সমাধানের কৌশল এবং ব্যবহারিক প্রয়োগশৈলী বিষয়ক প্রশিক্ষণ’ শীর্ষক এক কর্মশালার আয়োজন করা হয়। আয়োজনে সহযোগীতা করেছে ফাউন্ডেশন ফর ওপেন সোর্স সলিউশনস বাংলাদেশ। প্রশিক্ষণ পরিচালনা করেন তথ্য প্রযুক্তি ও তথ্য ব্যবস্থাপনা বিষয়ক বিশেষজ্ঞ পরামর্শক এবং ফাউন্ডেশন ফর ওপেন সোর্স সলিউশনস বাংলাদেশ (FOSS Bangladesh) এর মহাসচিব জনাব সাজেদুর রহিম জোয়ারদার।

কর্মশালার নামঃ ‘উন্মুক্ত সোর্স ভিত্তিক মুক্ত সফটওয়্যার লিনাক্স এর ব্যবহার, সমস্যা ও সমাধানের কৌশল এবং ব্যবহারিক প্রয়োগশৈলী বিষয়ক প্রশিক্ষন’
আয়োজকঃ তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ, মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, সন্তোষ, টাঙ্গাইল এবং ফাউন্ডেশন ফর ওপেন সোর্স সলিউশনস বাংলাদেশ যৌথভাবে
প্রশিক্ষনের মোট সময়ঃ ২ দিন x ৫ ঘন্টা = ১০ ঘন্টা

সময় ও প্রশিক্ষন সূচীঃ
১ম দিন (মোটঃ ৫ ঘন্টা ৩০ মিনিট)
লিনাক্স পরিচিতি, ব্যবহার ও সমস্যা সমাধান
১ম দিন (সকাল ১০টা থেকে দুপুর ১২:৩০ মিনিট)
=> লিনাক্স পরিচিতি — ১ ঘন্টা
=> লিনাক্স মিন্ট পরিচিতি — ১ ঘন্টা
=> লিনাক্স মিন্ট ইন্সটল ও কনফিগার করা — ৩০ মিনিট

১ম দিন (দুপুর ২:৩০মিনিট থেকে বিকাল ৫:৩০মিনিট)
=> লিনাক্স মিন্টের ব্যবহার (সাধারন) — ১ ঘন্টা
=> লিনাক্স মিন্ট ব্যবহার সংক্রান্ত বিভিন্ন সমস্যার সমাধান — ২ ঘন্টা

২য় দিন (মোটঃ ৪ ঘন্টা ৩০ মিনিট)
কর্মক্ষেত্রে প্রযুক্তির ব্যবহার (প্রোগ্রামিং)

২য় দিন (সকাল ১০টা থেকে দুপুর ১২:৩০ মিনিট)
=> বিভিন্ন টুলস ইন্সটল ও কনফিগার করা — ৫০ মিনিট
=> সি — ৪০ মিনিট
=> সি ++, জাভা — ৪০ মিনিট
=> প্রশ্নোত্তর — ২০ মিনিট

২য় দিন (দুপুর ২:৩০মিনিট থেকে বিকাল ৪:৩০মিনিট)
=> পিএইচপি, মাইএসকিউএল — ৪০ মিনিট
=> পাইথন — ৪০ মিনিট
=> ওয়েব অ্যাপ্লিকেশন ডেভেলপমেন্ট — ৪০ মিনিট
ফ্রেমওয়ার্ক পরিচিতি (কেক পিএইচপি, জ্যাংগো)

এ কর্মশালায় অংশ নিয়েছেন মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের স্নাতক(সম্মান) শ্রেনীতে অধ্যয়নরত, উন্মুক্ত প্রযুক্তি বিষয়ে আগ্রহী প্রায় অর্ধশতাধিক শিক্ষার্থী। কর্মশালার প্রথম দিনে প্রশিক্ষণার্থীদেরকে ব্যবহারিক প্রকল্পের মাধ্যমে লিনাক্স মিন্ট-১০ ইনস্টল ও কনফিগার করা, বিভিন্ন প্রয়োজনীয় সফটওয়্যারের ইনস্টলেশন, ব্যবহার, সমস্যা ও সমাধানের কৌশল এবং দ্বিতীয় দিনে কর্মক্ষেত্রে বাস্তব প্রয়োগ কৌশল হিসেবে বিভিন্ন প্রোগ্রামিং ভাষা ও ডেভেলপমেন্ট টুলস নিয়ে প্রশিক্ষণ দেয়া হয়।

কর্মসূচীর শেষে অংশগ্রহনকারীদের মধ্যে এমসিকিউ ভিত্তিক পরীক্ষা ও মূল্যায়নের ভিত্তিতে সনদপত্র বিতরন করা হয়। সনদপত্র বিতরন করেন মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের মাননীয় চেয়ারম্যান জনাব মোঃ আহসান হাবীব। সনদপত্র বিতরনী অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন উক্ত বিভাগের প্রভাষক জনাব মনির মোর্শেদ, জনাব নার্গিস আক্তার, জনাব মোঃ বদরুল আলম মিয়া এবং জনাব রাশেদ মজুমদার।

আপডেট: আয়োজনের কিছু ছবি